প্রচ্ছদ

নারী উন্নয়ন ও নারীর আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে বিশেষ অবদান রাখায় ৫জনকে পদক

09 December 2017, 16:38

নিজস্ব প্রতিবেদক
This post has been seen 47 times.

৯ ডিসেম্বর শনিবার সকাল সাড়ে ১০টায় রোকেয়া দিবস উপলক্ষে ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে বেগম রোকেয়া পদক-২০১৭ প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রধানমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশের মেয়েরা সবখানে স্থান করে নিয়েছে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, নিজগুণে নারীরা সকল ক্ষেত্রে নিজেদের অবস্থান তৈরি করে নিচ্ছে। নারীদের নিজেদের মেধা নিজেদেরই প্রকাশ করতে হবে। কারো মুখাপেক্ষী হয়ে থাকলে চলবে না।

তিনি বলেন, ‘বিচারালয়, বিশ্ববিদ্যালয়, পুলিশ বিভাগ এবং সশস্ত্র বাহিনীসহ সব জায়গায় নারীরা সক্ষমতার পরিচয় দিচ্ছে। জাগরণের অগ্রদূত বেগম রোকেয়া নারীদের শিক্ষার দ্বার খুলে দিয়েছেন। সমাজে বেগম রোকেয়ার আদর্শের পথ ধরে আমরা আলোর যুগে প্রবেশ করেছি। তার স্বপ্ন বাস্তবায়নের পথেই আমরা এগিয়ে চলেছি।’

প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, ‘নারী পুরুষ একসঙ্গে কাজ করলেই সমাজ ও দেশ উন্নত হতে পারে। বেগম রোকেয়া আমাদের (নারীদের) জন্য নতুন দিগন্তের উন্মোচন করে দিয়েছিলেন।’

‘নারী-পুরুষ একে অপরের পরিপূরক। নারীকে ছাড়া সমাজ কখনো পরিপূর্ণ নয়। খোড়া পা দিয়ে সমাজ কতদূর যেতে পারবে? সবাইকে সমানভাবে এগোতে হবে। এই বাস্তবতা স্বীকার করতে আমাদের সময় লেগেছে,’ বলেন শেখ হাসিনা।

এছাড়া মুক্তিযুদ্ধে নারীর ভূমিকা উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, মুক্তিযুদ্ধের সময় এ দেশের নারীরা রণাঙ্গণে যুদ্ধ করেছেন আবার গৃহেও তারা সেই সময় মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য কাজ করেছেন। যুদ্ধে নারী নির্যাতন সবচেয়ে বেশি হয়। এ দেশের স্বাধীনতা অর্জনের পেছনে ২৩ বছরের সংগ্রামে নারীর ভূমিকাও অনস্বীকার্য।

এর আগে নারী উন্নয়ন ও নারীর আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে বিশেষ অবদান রাখার জন্য ৫ নারীকে বেগম রোকেয়া পদক-২০১৭ প্রদান করেন প্রধানমন্ত্রী। বেগম রোকেয়া পদকপ্রাপ্তরা হলেন- চিত্রশিল্পী সুরাইয়া রহমান, লেখক শোভা রানী ত্রিপুরা, সাংবাদিক মাহফুজা খাতুন বেবি মওদুদ (মরণোত্তর), সংগঠক মাজেদা শওকত আলী এবং সমাজকর্মী মাসুদা ফারুক রত্না।

Share

Comments

comments

Shares