প্রচ্ছদ


ওসমানী বিমানবন্দরে ৭ কেজি স্বর্ণ জব্দ

04 January 2018, 04:00

নিজস্ব প্রতিবেদক
This post has been seen 278 times.

সিলেট এমএজি ওসমানী আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ৬০ পিস স্বর্ণের বার জব্দ করা হয়েছে। জব্দকৃত এসব স্বর্ণের ওজন প্রায় সাত কেজি বলে জানা গেছে। বুধবার বিকেল পৌনে ৫টার দিকে এসব স্বর্ণ জব্দ করা হয়। মো. কারিমুল ইসলাম নামের এক ব্যক্তির শরীরে বিশেষভাবে লুকায়িত সাত কেজি ওজনের ৬০টি স্বর্ণের বার জব্দ করেছেন শুল্ক গোয়েন্দারা।

ওসমানী বিমানবন্দরের সহকারী রাজস্ব কর্মকর্তা তপন কান্তি তালুকদার সংবাদ মাধ্যমকে জানান, বুধবার বিকেলে দুবাই থেকে ফ্লাই দুবাইয়ের একটি ফ্লাইট আসে ওসমানী বিমানবন্দরে। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ওই বিমানে তল্লাশী চালিয়ে ৬০টি স্বর্ণের বার জব্দ করা হয়। তিনি জানান, এসব স্বর্ণের বারের ওজন প্রায় সাত কেজি।

সিলেট বিমানবন্দর কাস্টমস ও বিমানের কেবিন ক্রুদের সহযোগিতায় স্বর্ণসহ ওই ব্যক্তিকে আটক করেন শুল্ক গোয়েন্দারা। শুল্ক ও গোয়েন্দা অধিদফতরের মহাপরিচালক (ডিজি) মইনুল ইসলাম এ সব তথ্য জানিয়েছেন।

তিনি জানান, জব্দকৃত ৬০টি স্বর্ণের বারের মোট ওজন প্রায় ৭ কেজি। প্রতিটি বারের ওজন ১১৬ গ্রাম। কারিমুল ইসলাম বিমানের একজন সহকারী মেকানিক। তিনি ২০১৫ সাল থেকে সিলেট বিমানবন্দরে কর্মরত।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, বিকেল ৪টা ৫০ মিনিটে দুবাইয়ের এফজেড ফাইভ নাইন ফাইভ ফ্লাইটটি দুবাই টু সিলেট অবতরণ করে। বিমানটিতে অবৈধ স্বর্ণ আসছে, এমন গোপন তথ্যের ভিত্তিতে শুল্ক গোয়েন্দা দল বিশেষ নজরদারি করতে থাকেন৷ বিমানের ফ্লাইটটি অবতরণের পরপর কারিমুল ইসলাম ভেতরে পরিষ্কার করার সময় স্বর্ণের বারগুলো বিমানের সিট থেকে তুলে নিজের প্যান্টে লুকিয়ে ফেলেন। শুল্ক গোয়েন্দারা সেসময় তাকে হাতেনাতে ধরে ফেলেন। পরে তাকে শুল্ক আইনে গ্রেফতার করা হয়।

কারিমুলকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। স্বর্ণ চোরাচালানে সহায়তার জন্য তার বিরুদ্ধে মামলার প্রস্তুতি চলছে। মামলার পর তাকে বিমানবন্দর থানায় সোপর্দ করা হয়।



Shares