প্রচ্ছদ


রেডটাইমস পদক লাভ করেছেন কবি আনিস মুহম্মদ

15 August 2018, 11:09

নিজস্ব প্রতিবেদক
This post has been seen 1431 times.

কবিতায় বিশেষ অবদান রাখার জন্য এবার পিআইবি রেডটাইমস পদক ২০১৮ লাভ করেছেন কবি ও অনুবাদক আনিস মুহম্মদ। রেডটাইমসের ১০ম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে গত ২৯ জুলাই তিনি অর্থ ও পরিকল্পনা প্রতিমন্ত্রী এমএ মান্নানের হাত থেকে এই পদক গ্রহণ করেন। এ সময় সেখানে উপস্থিত ছিলেন কবি কাজী রোজী এমপি ও অনলাইন গনমাধ্যম রেডটাইমস ডট কম ডট বিডির প্রধান সম্পাদক কবি সৌমিত্র দেব ।

কবি আনিস ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলায় ১৯৭৭ সালে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি বর্তমানে আইন, বিচার ও সংসদবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের আইন ও বিচার বিভাগের প্রটোকল অফিসার হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। তিনি একজন মুক্তিযোদ্ধার সন্তান। সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের অসংবাদিত নেতৃত্বে তার পিতা মোহাম্মদ আবুল কাশেম সরকার ১৯৭১ সালের মহান মুক্তিযুদ্ধে যুদ্ধকালীন কমান্ডার হিসেবে সুমহান দায়িত্ব পালন করেন।

এছাড়াও, তিনি মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ব্রাহ্মণবাড়িয়ার সাংগঠনিক কমান্ডার হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। বর্তমানে তিনি যুক্তরাষ্ট্র মুক্তিযোদ্ধা সংসদের তথ্য ও প্রচারবিষয়ক কমান্ডার। আনিস মুহম্মদ ইংরেজি ভাষা ও সাহিত্য বিষয়ে জাহাঙ্গীরনগর বিশ^বিদ্যালয়ে পড়াশোনা করেন। এছাড়াও, তিনি কালচারাল স্টাডিজ বিষয়ে ইউনিভার্সিটি অব লিবারেল আর্টস, বাংলাদেশ-এ অধ্যয়ন করেন। লেখালেখির পাশাপাশি তিনি অস্ট্রেলিয়া কর্তৃক সার্টিফাইড মেন্টাল হেলথ ফার্স্ট এইডার। তিনি পয়েটিক মেডিসিন নিয়ে কাজ করছেন। তিনি অ্যাপ্লাইড লিটারেচার শিরোনামে একটি কোর্স আউটলাইন তৈরির কাজ করছেন।

তিনি একইসাথে একজন মোটিভেশনাল ও ইন্সপিরেশনাল স্পিকার। তার ইতোমধ্যে ৪টি কাব্যগ্রন্থ প্রকাশিত হয়েছে। দুটি মৌলিক ও দুটি অনুবাদ (বাংলা-ইংরেজি ও ইংরেজি-বাংলা)। তিনি বর্তমানে সাহিত্য, সংস্কৃতি ও বাকস্বাধীনতা বিষয়ক আন্তর্জাতিক সংগঠন পেন ইন্টারন্যাশনাল, বাংলাদেশ-এর কোষাধ্যক্ষ হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। ত্রৈমাসিক ‘রিভিউ’ পত্রিকার প্রধান উপদেষ্টা। মাসিক রাইটার্স পত্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক। বেশ কয়েকটি আন্তর্জাতিক ফটো অ্যালবাম সম্পাদনা করেছেন। আন্তর্জাতিক অনুষ্ঠানে ইংরেজিত কবিতা পাঠসহ মাস্টার অব সেলিব্রেশন হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

দেশি-বিদেশি বিভিন্ন দৈনিক, সাপ্তাহিক ও জার্নালে তার লেখা প্রকাশিত হয়ে আসছে। তার লেখা আবরি, ফ্রেঞ্চ, জার্মানিসহ ১০টি ভাষায় অনূদিত হচ্ছে। তিনি গ্লোবাল ইয়ুথ পিস ফোরাম, বাংলাদেশ-এর প্রতিনিধি হিসেবে ২০১৭ সালে ভারতের চন্ডিগড়ে অনুষ্ঠিত গ্লোবাল ইয়ুথ পিস সম্মেলনে অংশগ্রহণ করেন। থাইল্যান্ডে পেন ইন্টারন্যাশনাল আয়োজিত ‘লেখকদের সিকিউরিটি’ সংক্রান্ত কর্মশালায় অংশগ্রহণ করেন। তথ্য মন্ত্রণালয় কর্তৃক প্রকাশিত ও প্রচারিত গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার-এর বিশেষ ক্রোড়পত্রে তার ইংরেজিতে অনূদিত কবিতা প্রকাশিত হয়েছে।

এছাড়াও, কোয়ার্টারলি বাংলাদেশ, জনকণ্ঠ, আমাদের সময়, যুগান্তর, ডেইলি স্টার, এশিয়ান এইজ, দৈনিক অবজারভার, দৈনিক নিউ নেশন, উত্তরণ (বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ-এর মুখপত্র), বেতার বাংলা, পার্লামেন্ট ওয়াচ ইত্যাদি পত্রিকায় তার লেখা প্রকাশিত হয়ে আসছে। এনটিভি ও বিটিভি তার সামগ্রিক কাজের ওপর সাক্ষাৎকার প্রচার করেছে। তিনি একজন বহুমুখী প্রতিভা ও তার কর্মক্ষেত্রও ব্যাপক বিস্তৃত।

তার মাতার নাম মিনারা বেগম (যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী); তারা দুই ভাই ও এক বোন (যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী); তার স্ত্রী উম্মে কুলসুম এমি একজন ব্যাংকার; পুত্র রেনেসাঁ আমী ও কন্যা আলেকজান্দ্রিয়া আমীর। তার প্রশিক্ষণ গ্রহণের বিষয় বহুমুখী।

সম্মাননা : তিনি ২০১৬ সালে এসএসআইটি ব্রাহ্মণবাড়িয়া কর্তৃক ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আলোকিত ব্যক্তিত্ব হিসেবে সম্মাননাপ্রাপ্ত হন। এছাড়া, ২০১২ সালে সাপ্তাহিক শারদীয়া কর্তৃক সাহিত্য পাতা ‘কাব্যলোকে কাব্যপাঠ’-এ বছরের সেরা সাহিত্য ব্যক্তিত্ব হিসেবে সম্মাননাপ্রাপ্ত হন।



Shares